শুক্রবার, ২৩ অগাস্ট ২০১৯, ০৯:৩৩ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনামঃ
জামালপুরের ডিসি ও এক নারীর ভিডিও নিয়ে তোলপাড় আগৈলঝাড়ায় ভগবান শ্রীকৃষ্ণের জন্মাষ্টমী উপলক্ষে বর্র্ণাঢ্য শোভাযাত্রা ও আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত ময়মনসিংহে ক্রীড়া পল্লীতে জুয়া খেলার আসরে র‌্যাবের অভিযানে প্রায় ১০ লক্ষ টাকা জরিমানা।  কেন্দুয়ায় বিদ্যুৎ স্পর্শে একজনের মৃত্যু আগৈলঝাড়ায় জন্মাষ্টমী উপলক্ষে গৈলা বাজার কির্ত্তন ও পূজা উদযাপন কমিটির শোভাযাত্রা বকশীগঞ্জে মিঞাবাড়িতে হামলার প্রতিবাদে এলাকাবাসীর সংবাদ সম্মেলন ও মানব বন্ধন শ্রীপুর থানা থেকে চুরি যাওয়া “মোটরসাইকেল” এসআই’র গাড়ি চালকসহ তিনজন গ্রেপ্তার। কেন্দুয়ায় সায়মা শাহজাহান একাডেমীর ৪তলা ভবনের ভিত্তি প্রস্থর শুভ উদ্বোধন বারহাট্টায় শোক সভা বারহাট্টায় শ্রী কৃষ্ণের জন্মাষ্টমী পালিত




কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া স্যানিটারী ইন্সপেক্টরের ভারত সফরে সমালোচনা

কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া স্যানিটারী ইন্সপেক্টরের ভারত সফরে সমালোচনা




 

নেত্রকোণা প্রতিনিধি:

নেত্রকোণার মোহনগঞ্জ উপজেলা হাসপাতালের স্যানিটারী ইন্সপেক্টর শম্ভুনাথ সরকার স্বাস্থ্য বিভাগের অনুমতি না নিয়ে ভারত সফরে যাওয়ায় সমালোচনা সৃষ্টি হয়েছে। শম্ভুনাথ সরকার দেশে ফিরলেই তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানিয়েছেন কর্তৃপক্ষ।

চাকুরীর তথ্য গোপন রেখে গত ২৯ মে বুড়িমারী চেক পোষ্ট দিয়ে ভারতে যান শম্ভুনাথ সরকার। পাসপোর্ট ও ভিসায় প্রাইভেট উল্লেখ করে প্রায় সময়েই ভারত গিয়ে পরিবারের সাথে সময় কাটান তিনি।
জানা যায়, ২৫ মে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা বরাবরে নৈমিত্তিক ছুটিসহ কর্মস্তল ত্যাগের জন্য পারিবারিক কাজ থাকায় ২৯ মে হতে ১লা জুন পর্যন্ত ৪ দিনের জন্য ছুটির আবেদন করেন তিনি। তার আবেদনে কোথায় অবস্থান করবেন উল্লেখ করেননি এবং মোবাইল নাম্বারও দেননি।
২৮ মে রাতে ময়মনসিংহ হতে যশোদা পরিবহনে বুড়িমারী চেক পোষ্ট দিয়ে ভারতের চেংরাবান্দা হয়ে শিলিঘুরী আশিঘর এলাকায় পরিবারের সাথে অবস্থান করছেন। ২৯ মে হতে তার (০১৭১৫-৪৭১১৯০) ব্যবহৃত নাম্বারটি বন্ধ রয়েছে।

বুড়িমারী চেক পোস্টে কর্মরত বুলু আহম্মেদ বলেন, ২৯ মে শম্ভুনাথ সরকার ভারতে গিয়েছেন। ব্যবসায়িক কারণ দেখিয়ে দীর্ঘ দিন ধরে বছরে ২/৪ বার ভারতে যান। পুরাতন পাসপোর্ট দেখিয়ে নতুন ডিজিটাল প্রাইভেট পাসপোর্ট করে নির্বিঘ্নে ভারত সফর করেন। তবে তিনি চাকুরী করেন সে বিষয়টি আমাদেরকে কোনদিন বলেনি।

ভারতের চেংরাবান্দা চেক পোস্টে কর্মরত বাবন জানান, শম্ভুনাথ সরকারের সাথে আমার ভালো সম্পর্ক রয়েছে। তিনি প্রায় সময় ভারত যান। তথ্য গোপন করে অনিয়মের আশ্রয় নিয়ে শম্ভুনাথ সরকার ভারত গিয়ে থাকেন বলেও তিনি জানান।
মোহণগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. সুবীর রায় বলেন, শম্ভুনাথ সরকারের বিদেশ যাওয়ার বিষয়টি আমার জানা নেই। তবে কোন সরকারি কর্মকর্তা কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া বিদেশ যাওয়ার নিয়ম নেই।

নেত্রকোনার সিভিল সার্জন ডা. মো. তাজুল ইসলাম খান বলেন, শম্ভুনাথ সরকারের বিদেশ যাওয়ার বিষয়টি প্রমাণিত হলে তার বিরুদ্বে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

মোহনগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মেহেদী মাহমুদ আকন্দ বলেন, অফিস ফাঁকি দিয়ে বিদেশ যাওয়ার বিষয়টি প্রমাণিত হলে অবশ্যই শম্ভুনাথ সরকারের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
শম্ভুনাথ সরকার ভারতে অবস্থান করায় তার ব্যবহৃত মোবাইল নাম্বারটি বন্ধ রয়েছে। তাই তার বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি।


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *













©২০১৩-২০১৯ সর্বস্তত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | দুর্জয় বাংলা
Desing & Developed BY DurjoyBangla
error: Content is protected !!