শুক্রবার, ২২ মার্চ ২০১৯, ১০:২১ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনামঃ
টংগিবাড়িতে আনারস মার্কার মত-বিনিমিয় সভা অনুষ্ঠিত মুক্তাগাছায় অ্যাম্বুলেন্সে ৩৫টি প্লাস্টিক কন্টেইনারে ৯৪৫ লিটার মদ উদ্ধার।  মেয়র আরিফুল হক চৌধুরীর সাথে ইউনিসেফের সৌজন্য সাক্ষাৎ বর্তমান সরকার সুবিধা বঞ্চিতদের পাশে রয়েছে : গোয়াইনঘাটে পৃথক অনুষ্টানে জেলা প্রসাশক চাঁদাবাজি, সন্ত্রাস ও মাদকমুক্ত কলারোয়া গড়তে চাই নির্বাচনী পথ সভায় লাল্টু উন্নয়ন প্রকল্পগুলো এমনভাবে গ্রহণ করুন, জনগণ ক্ষতিগ্রস্ত না হয়-প্রধানমন্ত্রী।  ওবায়দুল কাদেরের সুস্থতায় চট্টগ্রাম তৃণমূল এনডিএম কার্যালয়ে দোয়া মাহফিল শিক্ষকদের বেতন ১১তম গ্রেড বাস্তবায়নের দাবিতে যশোরে মানববন্ধন ত্রিশালে শ্যামলী বাংলা পরিবহনের বাস নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে খাদে পড়ে ২০ যাত্রী আহত।  আগৈলঝাড়ায় কৃষি প্রযুক্তি হস্তান্তর মেলা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত




দুর্গাপুরে ব্যবসায়ীর জায়গা অবৈধ দখল করে বহুতল ভবন নির্মাণের অভিযোগ

দুর্গাপুরে ব্যবসায়ীর জায়গা অবৈধ দখল করে বহুতল ভবন নির্মাণের অভিযোগ




কলিহাসান,দুর্গাপুর(নেত্রকোনা)প্রতিনিধি:

নেত্রকোনার দুর্গাপুরে প্রভাষক মোঃ সায়েদুর রহমান (আবু সাঈদ) বিরূদ্ধে এক ব্যবসায়ীর জমি অবৈধভাবে দখল করে বহুতল ভবন নির্মানের লিখিত অভিযোগ পাওয়া গেছে।
সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, পৌর সদরের বাগিছা পাড়াস্থ মৃত: আঃ আজিজের পুত্র মোঃ সেলিম বি.আর এস ৫৫০৪ দাগের অংশ ১১ শতাংশ ভূমি খরিদা সূত্রে মালিক।
তিনি দীর্ঘদিন ধরে ওই ১১শতাংশ ভূমি দখল করে আছেন। ঐ জমির পাশের বসতি ওই গ্রামের মফিজ উদ্দিন কেনু মাষ্টারের পুত্র দুর্গাপুর সরকারী কলেজের ব্যবস্থাপনা বিভাগের প্রভাষক মোহাম্মদ সায়েদুর রহমান সাঈদ সেলিমের অংশে থাকা দখলি জমির আংশিক অংশ দখল করে বহুতল ভবন নির্মাণ কাজ চালিয়ে আসছে।
দুর্গাপুর পৌরসভার নির্মান আইন ও নিয়ম নীতির তোয়াক্ষা না করেই ব্যাপক প্রভাব কাটিয়ে নির্মাণ কাজ চালিয়ে যাচ্ছেন ওই প্রভাষক। অবৈধ নির্মাণ
কাজ বন্ধ করণ বিষয়ে দুর্গাপুর পৌরসভার কার্যালয় হতে চলতি মাসের ৩ তারিখে
স্মারক নং: দুর্গা/পৌর/২০১৮/২৩৪ যাহা নির্মান আইন অর্থাৎ ইঁরষফরহম ঈড়হংঃৎঁপঃরড়হ অপঃ ১৯৯২(ঊ.ইধপঃ-ড়ভ ১৯৫৩ এর ঝবপঃরড়হ ১২) পরিপন্থি এই মর্মে নির্মাণ কাজ রাখার জন্যে একটি নোটিশ প্রদান করা হয়। ওই নোটিশকে বৃদ্ধাগুলি দেখিয়ে গায়ের জোরে চালিয়ে যাচ্ছেন নির্মাণ কাজ।

তাঁর এই ভূমিদস্যু কারবারী কর্মকান্ডে অতিষ্ট সেলিম ও তাঁর পরিবারের লোকজন। এ ব্যাপারে
দুর্গাপুর পৌরসভার মেয়র আব্দুস সালামের নিকট জানতে চাইলে তিনি বলেন,
আমি নির্মাণ কাজ বন্ধ রাখার জন্যে নোটিশ প্রদান করেছি। তিনি আরো বলেন, সেলিমের দখলি ১১শতক জমি গ্রাম্য সালিশের মাধ্যমে ২০১০ সালে ৩ জন বেসরকারী সার্ভেয়ারের মাপের পরিপ্রেক্ষিতে প্রভাষক সাঈদ তাঁকে বুঝিয়ে দেন। ৯ বছর পর
আবারো ভূমি দখলের চেষ্টা চালিয়ে দখল করে ১শতক জমি।

এ বিষয়টি স্থানীয় পৌর কর্তৃপক্ষকে জানানো হলেও নির্দেশ মানছে না প্রভাষক সাঈদ। ব্যবসায়ী সেলিম এর নিকট দখলকৃত জমির বিষয়ে জানতে চাইলে মুঠোফোনে বলেন,আমি ১৯৯৮ সালে ওই ১১ শতক জমি কিনে বসবাস করছি। সে তাঁর সীমানা অতিক্রম করে আমার দখলি জমিতে ভবন নির্মাণ করছে সম্পূর্ণ অবৈধ উপায়ে। আমি বাঁধা
দিতে গেলে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে প্রভাষক আবু সাঈদ। আমি এ বিষয়ে পৌরসভায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছি। আমি পৌর কর্তৃপক্ষের সর্বশেষ খবর নিয়ে আইনি পথে লড়ব।

জমি দখলকারী প্রভাষক মোঃ সায়েদুল ইসলাম বলেন, আমি বিধির বাইরে কিছুই করিনি।


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *













©২০১৩-২০১৯ সর্বস্তত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | দুর্জয় বাংলা
Desing & Developed BY DurjoyBangla