রাজারহাটে গুচ্ছগ্রামের ঘর পেয়ে খুশি ১৫টি পরিবার | দুর্জয় বাংলা

শনিবার, ১৯ অক্টোবর ২০১৯, ০১:১৫ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনামঃ
দুর্গাপুরে খুনের ঘটনার সাথে জড়িত আরও ১ আসামী গ্রেফতার দুর্গাপুর সীমান্ত দিয়ে ভারতে অনুপ্রবেশ করায় আট বাংলাদেশীকে ফেরত সপ্তম বারের মতো বিয়ের পিঁড়িতে প্রাথমিক শিক্ষিকা আবরার ফাহাদ হত্যাকারীদের দ্রুততম সময়ের মধ্যে সর্বোচ্চ শাস্তি দিতে হবে-খেলাফত আন্দোলন ময়মনসিংহ ডিবি’র অভিযানে ২০ টি চোরাই মোবাইল ও ১০ পিস ইয়াবাসহ গ্রেফতার-২ বিজিবি-বিএসএফ’র পতাকা বৈঠকের মাধ্যমে ভারতীয় নারী ও বাংলাদেশী নাগরিক নিজ নিজ দেশে হস্তান্তর বিএসএফ সদস্যের গুলির জবাবে আত্মরক্ষার্থে গুলি চালায় বিজিবি মাদ্রাসা’র ছাত্রী অপহরণের চার দিন পর উদ্ধার আটক-১ কলমাকান্দায় আওয়ামীলীগের সভাপতিকে হুমকি ডিসির কাছে ঘুষ চাইলেন ভূমি কর্মকর্তা




রাজারহাটে গুচ্ছগ্রামের ঘর পেয়ে খুশি ১৫টি পরিবার

রাজারহাটে গুচ্ছগ্রামের ঘর পেয়ে খুশি ১৫টি পরিবার




এ.এস. লিমন রাজারহাট(কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধিঃ কুড়িগ্রামের রাজারহাটে উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ভুমি মন্ত্রণালয়ের আওতায় সিভিআরপি প্রকল্পের মাধ্যমে ২য় পর্যায়ে ২৩ লাখ ৫০ হাজার টাকা ব্যয়ে উপজেলার ঘড়িয়ালডাঙ্গা ইউপির মুশরুত নাখেন্দা গ্রামে মোট ৫৪ শতক জমির উপর গুচ্ছগ্রাম নির্মাণ করা হয়েছে। ওই গুচ্ছগ্রামে ১৫ টি পরিবারকে ১ টি করে ঘরসহ তিন শতক জমি বরাদ্দ দেয়া হয়েছে।


এছাড়া চারটি টিউবওয়েল স্থাপিত করা হয়েছে। সদ্যনির্মিত গুচ্ছগ্রামে ঘর বরাদ্দ পাওয়া মো. নুরজ্জামাল হক বলেন, দুই পা মাটিতে ফেলার জায়গা ছিলনা না এবং মাথাগুজার ঠাঁই ছিলো না মানুষের জমিতে থাকতাম। যখন তখন বাড়ী ঘর নিয়ে উঠে যেতে বলতো তখন বাবা-মা আমাদের ভাই-বোনকে নিয়ে চিন্তায় পড়ে যেতেন কোথায় যাবেন আমাদেরকে নিয়ে। জমি কিনা তো দূরের কথা কষ্টের এই পরিবারে প্রতিদিন যে রোজগার হয় তা দিয়ে আমাদের কোন রকম দুবেলা -দুমুটো ভাতেই জুতে না। এখন আর চিন্তা নেই ইউএনও সাহেব আমার নামে গুচ্ছ গ্রামে একটি ঘর বরাদ্দ (ঘর নং-১২) দিয়েছেন। মাথাগুজার ঠাঁই হয়েছে।




আমি খুব খুশি। পুনর্বাসিত মো. মাহাবুব জানায়, এখন আর চিন্তা নেই গুচ্ছগ্রামে ঘর পেয়েছি (ঘর নং-১) নিরাপদ এবং চিন্তামুক্ত আশ্রয়ের স্থান হয়েছে। এখন মানুষের কাজকর্ম করে ছেলে-মেয়েকে নিয়ে সংসার ভাল চলছে। অপরদিকে মোছা:রহিমা বেগম বলেন, আমার জায়গা জমি ছিলো না তিনজন ছেলে-মেয়ে নিয়ে অনেক কষ্টে অন্যনের জমিতে বসবাস করতাম। এখন একটি ঘর বরাদ্দ পেয়েছি আমার ছেলে- মেয়ে অনেক খুশি হয়েছে। ওই গুচ্ছগ্রামে মোট ১৫ জন ভুমিহীন পরিবার ঘর বরাদ্দ পেয়ে তারা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার মুহঃ রাশেদুল হক প্রধানসহ সংশ্লিষ্টদের প্রতি কৃতজ্ঞা প্রকাশ করেছেন।




গুচ্ছগ্রাম প্রকল্পের আঞ্চলিক প্রকল্প পরিচালক এস এম আবু হুরায়রা ও প্রকল্প সংশ্লিষ্ট প্রকৌশলীবৃন্দদের সঙ্গে কথা হলে তারা জানান ,রাজারহাট উপজেলার ঘড়িয়ালডাঙ্গা ইউপির মুশরুত নাখেন্দার গুচ্ছগ্রামটি আমরা পরিদর্শন করেছি কাজের মান খুবেই ভাল হয়েছে এবং ওই গুচ্ছগ্রামটি বাস্তবায়নে একটি আর্দশ গুচ্ছগ্রামে পরিণিত হয়েছে। এ বিষয়ে রাজারহাট উপজেলা নির্বাহী অফিসার মুহঃ রাশেদুর হক প্রধান বলেন বর্তমান মধ্য আয়ের দেশ গড়তে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কেউ আশ্রয়হীন থাকবেনা এ কর্মসূচী হাতে নিয়েছেন। ওই কর্মসূচীর আওতায় রাজারহাট উপজেলার ঘড়িয়ালডাঙ্গা ইউপির মুশরুত নাখেন্দা এলাকায় প্রায় ২৩ লাখ ৫০ হাজার টাকা ব্যয়ে ১৫টি ঘর নির্মাণ করা হয়েছে।




প্রতিটি ঘরে সঙ্গেই রয়েছে আলাদা ল্যাটিন এবং টিউবয়েল। ভুমিহীনদের একটি আশ্রয় কেন্দ্রে গুচ্ছগ্রাম নামে ওই আশ্রয় কেন্দ্রে ১৫ টি ভুমিহীন পরিবার বসবাসের সুযোগ পেয়েছে। এসব ঘর দুস্থ পরিবারদেরকে দেয়া হয়েছে। ঘর বরাদ্দ পেয়ে দুস্থ পরিবারের সদস্যরা হাঁসি মুখে নতুন ঘরে উঠেছে। তারা ঘর পেয়ে খুবেই খুশি হয়েছে।


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *







সার্বনীন শারদীয় দুর্গোৎসব শারদ শুভেচ্ছা

১৩ তম আন্তর্জাতিক মহিলা এসএমই বানিজ্য মেলা

আজকের নামাজের সময় সূচী

সেহরির শেষ সময় - ভোর ৪:৩৯
ইফতার শুরু - সন্ধ্যা ১৭:৩৬
  • ফজর
  • যোহর
  • আছর
  • মাগরিব
  • এশা
  • সূর্যোদয়
  • ৪:৪৪
  • ১১:৪৮
  • ১৫:৫৫
  • ১৭:৩৬
  • ১৮:৫০
  • ৫:৫৬







©২০১৩-২০১৯ সর্বস্তত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | দুর্জয় বাংলা
Desing & Developed BY DurjoyBangla
error: Content is protected !!