কলমাকান্দায় স্বাধীনতার ৪৮ বছর পর সেচ্ছাশ্রমে রাস্তা পূণ:নির্মাণ

কলমাকান্দা (নেত্রকোণা) প্রতিনিধি :

নেত্রকোণার কলমাকান্দায় স্বাধীনতার ৪৮ বছর পর প্রায় তিন কিলোমিটার গ্রামীণ রাস্তা সেচ্ছাশ্রমে পূণ:নির্মাণ উদ্যোগ নিয়েছেন ইউপি চেয়ারম্যান মো. সাইদুর রহমান ভূইয়া




সরেজমিনে আজ শনিবার (১৮ জানুয়ারি) ঘুরে দেখা যায় – উপজেলার লেংঙ্গুরা ইউনিয়নের গৌরীপুর ব্রীজ থেকে তারানগর পযন্ত্য প্রায় তিন কিলোমিটার গ্রামীণ রাস্তা স্বাধীনতার ৪৮ বছর পর ইউপি চেয়ারম্যান মো. সাইদুর রহমান ভূইয়ার উদ্যোগ স্থানীয় প্রায় শতাধিক নারী-পুরুষ সেচ্ছাশ্রমে পূণ:নির্মাণের কাজ করেছেন । এসময় স্থানীয় লোকজনের সাথে কথা বলে জানা যায় স্বাধীনতার পর ওই সড়কে একবার বেসরকারি সংস্থা কারিতাস বাংলাদেশ কিছু মাটির কাজ করেন। এর পর থেকে এ পর্যন্ত ওই রাস্তায় কোনো কাজ করা হয়নি। রাস্তাটি ভেঙে যাওয়া আশপাশের গ্রামের হাজার হাজার লোকজন পাঁয়ে হেঁটে ওই সড়কে চলাফেরা করতে হচ্ছে। গ্রামের কেউ অসুস্থ হলে দুর্ভোগের যেন শেষ নেই। তাছাড়া স্কুলে পড়ুয়া শিক্ষার্থীরাসহ বয়োজ্যেষ্ঠ লোকজন ওই রাস্তায় চলাফেরা করতে গিয়ে সময় দুর্ঘটনার শিকার হচ্ছেন।




গৌরীপুর গ্রামের বয়োজ্যেষ্ঠ বাসিন্দা মো. শামসুল খাঁ আক্ষেপ করে বলেন স্বাধীনতার ৪৮ বছর পর কোন সরকারই এ গ্রামীন রাস্তাটি পূণ:নির্মাণ করার কোন উদ্যোগ নেননি। ওই গৌরীপুর গ্রামের কলেজ পড়ুয়া শিক্ষার্থী মো. নুর জাহান জানান আমাদের এ গ্রামে প্রায় দশ হাজার লোকের বসবাস। রাস্তার কারণে ভোগান্তিতে আছি আমরা। সবচেয়ে বেশি সমস্যায় গর্ভবতী মায়েদের। ইউপি চেয়ারম্যানের উদ্যোগে ও বিভিন্ন এনজিও সংগঠনের সমিতির সহযোগিতায় স্থানীয় প্রায় শতাধিক নারী -পুরুষ সেচ্ছাশ্রমে এ গ্রামীন রাস্তাটি পূণ:নির্মাণ কাজ করছেন ।




ওই ওয়ার্ডের প্রাক্তণ ইউপি সদস্য কুমকুম নকরেক জানান ১৯৭২ সালে তৎকালীন সময়ে কারিতাসের উদ্যোগে এ রাস্তাটি সংস্কার করা হয়েছিল। আমি ইউপি সদস্য থাকাকালীন সময়ে রাস্তাটি পূণ:নির্মাণ প্রস্তাবনা পাঠায় কিন্তু অজ্ঞাত কারণে প্রস্তাবনা বাদ দেয় সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ।




লেংঙ্গুরা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. সাইদুর রহমান ভূইয়া জানান – স্বাধীনতার ৪৮ বছর পরও গৌরীপুর থেকে তারানগর পযন্ত্য প্রায় তিন কিলোমিটার গ্রামীণ রাস্তা কেউ কোন পূণ:নির্মাণের উদ্যোগ নেয়নি। আমি আমার এলাকার জনগণের সার্বিক আন্তরিক সহযোগীতায় প্রায় ২৫০ জন নারী-পুরুষের অংশ গ্রহণে সেচ্ছাশ্রমের ভিত্তিতে প্রতিদিন ওই রাস্তাটিকে পূণ:নির্মাণের কাজ করার উদ্যোগ নিয়েছি।

আরও পড়ুন>> নয়নে দিলা জ্যোতি এই অন্তরের অন্তরপতি

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

Please enter your comment!
Please enter your name here