টঙ্গিবাড়ীতে স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থীর কর্মিকে মারধর সংবাদ সম্মেলন

টঙ্গীবাড়ী প্রতিনিধি

0
1

টঙ্গীবাড়ী  উপজেলার বেতকা ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী  রোকনুজ্জামান শিকদার রিগ্যান এর কর্মিকে মারধর, মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানী করার প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বুধবার বিকালে বিক্রমপুর টঙ্গিবাড়ী প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করেন বেতকা ইউনিয়নের স্বতন্ত্র মোটর সাইকেল প্রতিকের প্রার্থী  রোকনুজ্জামান শিকদার রিগ্যান।

সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন,  ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে নৌকা প্রতিকের প্রাথর্ী শওকত আলী খান মুক্তার আমার কর্মি সুলতান হালদারকে বুধবার সকালে উপজেলার রায়পুড়া গ্রামে ভোট চাইতে গেলে  শওকত আলী খান মুক্তারসহ ১৪/১৫জন সন্ত্রাসী বাহিনী নিয়ে সুলতান হালদারকে মারধর করে। সুলতান গুরুতর আহত অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি আছে।

সে আরো বলেন, গত মঙ্গলবার রাতে নৌকা প্রতিকের প্রার্থী নিজেই তার কান্দাপাড়া এলাকার নৌকার ক্লাব পুড়িয়ে আমিসহ আমার কর্মিদের মিথ্যা মামলা দেওয়ার পায়তারা করছে। এরও আগে রান্ধুনীবাড়ি এলাকায় নৌকা প্রতিকের প্রাথর্ী নিজেই নিজের ক্লাবে আগুন দিয়ে আমার ২৬ কর্মির নামে মিথ্যা মামলা দিয়েছে।  এখোন আবার নিজের ক্লাবে আগুন দিয়ে আমার ৫০ কর্মির বিরুদ্ধে মামলা দেওয়ার পায়তারা করিতেছে। তাকে ভোট না দিলে পায়ের রগ কেটে নিবে বলে আমার ভোটারদের হুমকি ধামকি দিচ্ছে।  এ অবস্থায় আমি নিজেই শঙ্কা আছি আগামী ২৮ তারিখে যে নির্বাচন হবে তা সুষ্ঠ হবে কিনা। এছাড়া শওকত আলি খান প্রতিনিয়ত আমাকেও দেখে নিবে খুণ জখম করবে বলে হুমকি দিচ্ছে।  আমি প্রসাশনের কাছে সুস্থ অবাধ নির্বাচন চাই। এ  ব্যাপারে টঙ্গিবাড়ী থানা অফিসার ইনচার্জ মোল্লা সোয়েব আলী বলেন, ওই এলাকায় মারামারি ঘটনায় পাল্টাপাল্টি অভিযোগ পেয়েছি তদন্ত সাপেক্ষে ব্যাবস্থা নেওয়া হবে।