13.7 C
New York
বৃহস্পতিবার, জুন ১৭, ২০২১

দুর্গাপুরে বাবা-ছেলেকে পিটিয়ে গুরুতর আহত,গৃহবধূর শ্লীলতাহানি

বিজ্ঞাপন

নেত্রকোনার দুর্গাপুরে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে প্রতিপক্ষের হামলায় বাবা-ছেলে আহত ও গৃহবধূ শ্লীলতাহানীর ঘটনা ঘটেছে। গুরুতর আহত হাজী উসেন আলী(৬৫),ছেলে কাজল মিয়া(৩২), জুলেখা খাতুন(৪৫) কে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

এ ঘটনায় গতকাল বুধবার রাতেই দুর্গাপুর থানায় অভিযোগ সদায়ের করা হয়েছে। অভিযোগ দায়ের এর সত্যতা নিশ্চিত করেন বাকলজোড়া ইউনিয়নের বিট অফিসার সাব-ইন্সপেক্টর মো.সাদেক।

গতকাল (৪ মে) বুধবার দুপুরে নাগেরগাতী গ্রামে হাজী উসেন আলীর ফসলি জমিতে এ মারপিটের ঘটনাটি ঘটেছে।

বিজ্ঞাপন

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, উপজেলার রামনগর গ্রামে দীর্ঘদিন ধরে একই গ্রামের ইদ্রিস আলী (৫০)এর সাথে ঢেড়শ খেত খাওয়া নিয়ে বিরোধ চলছিল।

গতকাল বুধবার দুপুরে নাগেরগাতী হাজী উসেন আলীর ফসলি জমিতে ইদ্রিস আলীর ছাগল ঢেড়শ গাছ খেয়ে ফেলে। এর আগেও কয়েকবার ছাগল লাগলে মৌখিকভাবে ছাগল আসতে নিষেধ করে।

বিজ্ঞাপন

দুইবার ওই ছাগলকে খোয়ারে দেয়া হয়। এরই জের ধরে গতকাল আবারও ছাগল খেতে গেলে নিষেধ করায় দুই পক্ষের মধ্যে কথা কাটাকাটি শুরু হয়।

এক পর্যায়ে ইদ্রিস আলী(৫০), ইসলাম উদ্দিন(৪৫) সানি মিয়া(২৬), ঝলক মিয়া(১৮) হামলাকারীরা হাজী উসেন আলী, কাজল মিয়া ও জুলেখা খাতুনকে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে এলোপাতারি মারধর করে কাজলের মুখমÐল তেথলিয়ে দেয় ও গৃহবধূ জুলেখা খাতুনকে শ্লীলতাহানি ঘটায়।

এ সময় বাবাকে বাঁচাতে গেলে হামলাকারীরা অপর ছেলে রতন মিয়াকেও লাটি-সোটা নিয়ে ভয়ভীতি দেখায়। তারা আহতদের হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য আনতে চাইলে নানা ভয়ভীতি ও হুমকি প্রদর্শণ করে।

পরে থানা পুলিশের সহায়তায় আহতদের উপজেলা সরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে ও প্রতিপক্ষদের লাটি-সোঠা পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করেছে বলেও জানা গেছে।

দুর্গাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহনুর-এ আলম জানান, মারপিটের খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে।

আহতদের চিকিৎসা চলছে। অভিযোগ তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

আরও পড়ুনঃ দুর্গাপুরে জোড়পূর্বক ধান কেটে নেয়ার অভিযোগে ভুক্তভোগীর সংবাদ সম্মেলন

বিজ্ঞাপন

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

Please enter your comment!
Please enter your name here

সর্বশেষ সংবাদ

x
error: Content is protected !!