13.7 C
New York
শুক্রবার, ফেব্রুয়ারি ২৬, ২০২১

দুর্ঘটনার সংবাদ প্রকাশ করায় সাংবাদিককে হত্যার হুমকি

বিজ্ঞাপন

ময়মনসিংহ সদর উপজেলার সাহেব কাচারী বাজারে কিশোরগজ্ঞ-ময়মনসিংহ আঞ্চলিক মহা-সড়কের আংশিক দখল করে কাফেলার নামে গানের আসরে সড়ক দুর্ঘটনার সংবাদ বিভিন্ন প্রিন্ট ও অনলাইন পোর্টালে প্রকাশ হওয়ায় স্থানীয় এক সাংবাদিককে প্রকাশ্য হাত পা ভেঙ্গে দেয়ার হুমকি দিয়েছে স্থানীয় সন্ত্রাসী মোঃ আব্দুস ছালাম ও তার সন্ত্রাসী বাহিনী ।

বিজ্ঞাপন

স্থানীয় সাহেব কাচারী বাজরের বহু ব্যবসায়ী ও জনপ্রতিনিধি তার হুমকি ও বাহিনীর মহড়া প্রদর্শনের ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছে ।

স্থানীয় নূরুল আমীন এ ব্যপারে জেলা প্রশাসকের বরাবরে লিখিত অভিযোগ করেছেন।

বিজ্ঞাপন

স্থানীয়রা জানান, সাবেক মেম্বার আব্দুস ছালাম দীর্ঘ দিন ধরে এলাকায় ত্রাসের রাম-রাজত্ত্ব কায়েম করে আসছে ।তার বিরুদ্ধে এলাকার কেও প্রকাশ্য কথা বললে তার সন্ত্রাসী বাহিনী দিয়ে মানুষকে নাজেহাল করা হয়।

তার অপকর্মের প্রতিবাদ করতে গিয়ে স্বনামধন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান লেতু মন্ডল উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক বর্তমান রেক্টর আলহাজ্ব মোঃ রফিকুল ইসলাম মাস্টারকে বেধরক লাঠিপিটা করে হত্যার চেষ্টা চালায় ।

বিজ্ঞাপন

পরে ত্রাসের রাম-রাজত্ত্ব কায়েম করতে ভারত থেকে আমদানি করে হাতি মারার তীর ছুরে ২৩ জনকে আহত করে ।

তাতেও তিনি ক্ষান্ত হয়নি, বিদ্যালয়ের অফিস কক্ষে অনধিকার প্রবেশ করে প্রধান শিক্ষকসহ সহকারী শিক্ষকদের নাজেহাল করেছে। সে একটি হত্যা মামলার যাবজ্জীবন সাজা প্রাপ্ত আসামী ।

দীর্ঘদিন জেল খানায় থাকার সুবাদে এলাকার পরিবেশ শান্ত থাকলেও জামিনে আসার পর থেকে আবার চাঁদাবাজী ,দখলবাজী ও এলাকার গন্যমাণ্য ব্যাক্তিদের নাজেহাল , অস্লিল গালাগাল করাসহ ত্রাসের রাম-রাজত্ত্ব কায়েম করে চলছেন । স্থানীয়রা ক্ষোভ প্রকাশ করে জানান, সাহেব কাচারী বাজারে একজন কামেল পীরের মাজার ।

প্রতি বছর বাংলা মোতাবেক (১৩ ফাল্গুন) উঃসবমূখর পরিবেশে ওরছ মোবারক জিকির মিলাদ ও দোয়া মাহফিলের মাধ্যমে পালন করা হত । পরে রাত ব্যাপি চলত হয়রত আয়েত আলী শাহ (রঃ)এর ভক্তবৃন্দের আয়োজনে বাউল গানের আসর ।

অত্যন্ত পরতিাপের বিষয় বিগত প্রায় তিন মাস যাবৎ প্রতি শুক্রবার কাফেলার নামে চালিয়ে যাচে্ছ বাউল গানের ৬টি আসর ।তার মধ্য ৪টি কাফেলার সভাপতিত্ত্ব করে আব্দুস ছালাম মেম্বার।

আর এ উপলক্ষে পুলিশের নাম ভাঙ্গিয়ে প্রতি কাফেলা থেকে তিনশত টাকা চাঁদা নিচ্ছে বলে দাবী করেছেন বাউল গানের আসরের আয়োজক রিপন, সারোয়ার জাহান ।

চাঁদা আদায়ের বিষয়ে বর্তমান ইউপি সদস্য মোঃ আমিনুল ইসলামের সাথে কথা বলেও তার সত্যতা পাওয়া গেছে। তিনি বলেন, আমার কাফেলা থেকে নেয়নি তবে অন্যান্য কাফেলা থেকে নিয়েছে ।

এসময় ময়মনসিংহ কোতোয়ালী মডেল থানার এসআই কামাল উপস্থিত ছিলেন । আর তবারকের নামে ৫০ থেকে শুরু করে শত টাকা নেয় বলে স্থানীয শতশত মানুষের দাবী । এ ছাড়াও চলে তার নিরব চাঁদাবাজী ।

কেও দিচ্ছে চক্ষু লজ্জায় আর কেও দিচ্ছে অত্মসম্মান বাঁচাতে। প্রতি শুক্রবার সাপ্তাহিক কাফেলার নামে নারী পুরুষ সম্মিলিত অস্লীল নাচ-গান ও ৬টি আসরে প্রায় ২৪/২৫টি মাইক ব্যাবহার করে অসামাজিক কার্যকলাপ বন্ধের করা প্রসঙ্গে পুলিশ সুপার, ময়মনসিংহসহ স্থানীয় প্রশাসনের বরাবর লিখিত অভিযোগ করেছেন এলাকাবাসীর পক্ষে মোঃ নূরুল আমিন ।

আরও পড়ুনঃ ইসলামপুরে পৌর বিএনপি সাবেক সভাপতি জয়নাল আবেদীন’র রোগমুক্তি কামনায় দোয়া

বিজ্ঞাপন

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

Please enter your comment!
Please enter your name here

সর্বশেষ সংবাদ

x