13.7 C
New York
শনিবার, সেপ্টেম্বর ২৫, ২০২১

প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ

বিজ্ঞাপন

আমি আঃ আউয়াল সুনামগঞ্জের ধর্মপাশা উপজেলার বংশীকুন্ডা দক্ষিণ ইউনিয়নের বুড়িপাঠনী আদর্শ গ্রামের একজন স্থায়ী বাসিন্দা ও বীর মুক্তিযোদ্ধা। আমার বয়স ৬৭ বছরের অধিক হওয়ায় কোনো কাজ কর্ম করতে না পারায় পরিবারের লোকজনকে নিয়ে কষ্টে দিনাতিপাত করছি। আমি শারীরিকভাবে অসুস্থ্য হওয়ায় চিকিৎসার ব্যয় বহন করতে ও পরিবারের ব্যয় নির্বাহের জন্য বুড়ি পাঠনী গুচ্ছ গ্রামের মোহাম্মদ আলীপুর মৌজাস্থ পরিত্যক্ত ঘাটটি সরকারি রাজস্ব দিয়ে খাস কালেকশনের জন্য আবেদন করলে গত ৩১ মে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রাজস্ব আদায়ের স্বার্থে খাস কালেকশনের অনুমতি প্রদান করেন। তখন থেকে সরকারি বিধি মোতাবেক টোল আদায় করা হচ্ছে।

বিজ্ঞাপন

কিন্তু মধ্যনগর থানা যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক কামাল হোসেন ও মধ্যনগর থানা শ্রমিক লীগের সভাপতি এসএম শামসুদ্দিনের পরামর্শে গত (১০/০৬/২০২০) বুধবার বংশীকুন্ডা দক্ষিণ ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সানোয়ার হোসেন খোকা, বুড়িপত্তন গ্রামের বাসিন্দা নজরুল ইসলাম ও শাহ আলম মিয়াসহ একটি কুচক্রী মহল উদ্দেশ্য প্রনোদিতভাবে আমাকে সামাজিকভাবে হেয়প্রতিপন্ন করার লক্ষে এখানে চাঁদাবাজী করা হচ্ছে বলে বুড়িপত্তন গ্রাম সংলগ্ন সড়কে মিথ্যে মানববন্ধন করে। যা নিয়ে বুধবার ও বৃহস্পতিবার কয়েকটি স্থানীয়, জাতীয় ও অনলাইন নিউজ পোর্টালে সংবাদ প্রকাশিত হয় যে, আমার নাম ব্যবহার করে বুড়িপত্তন গ্রাম সংলগ্ন সোমেশ্বরী নদীতে ইঞ্জিনচালিত নৌকা থেকে মোহাম্মদ আলীপুর গ্রামের আমান উল্লাহ, কলিম উদ্দিন, সাইকুল মিয়াসহ আরো কয়েকজন চাঁদা আদায় করছে। যা সম্পূর্ণ মিথ্যে এবং বানোয়াট। মধ্যনগর থানা যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক কামাল হোসেন ও মধ্যনগর থানা শ্রমিক লীগের সভাপতি এসএম শামসুদ্দিন সানোয়ার হোসেন খোকার মাধ্যমে এ ঘাটটি খাস কালেকশনে নেওয়ার জন্য চেষ্টা করে ব্যর্থ হওয়ায় এমন মিথ্যে অভিযোগ তুলেছে।

যা শাহ আলম আমাদের কাছে স্বীকার করেছে। শাহ আলমের স্বীকারোক্তী আমাদের কাছে সংরক্ষিত আছে। প্রতিপক্ষের লোকজন অন্যায়ভাবে লাভবান হওয়ার জন্য তাদেরকে সাথে নিয়ে টোল আদায় করার জন্য আমাদের বিভিন্নভাবে হুমকি ও প্রস্তাব দিয়ে আসছে। আমি তাদের অন্যায় আবদার না রাখায় আমার বিরুদ্ধে মিথ্যে অপপ্রচার চালিয়ে যাচ্ছে। আমি শারীরিকভাবে অসুস্থ্য থাকায় ঘাট থেকে সরকার নির্ধারিত টোল আদায়ের জন্য আমান উল্লাহ, কলিম উদ্দিন ও সাইকুল মিয়াকে নিযুক্ত করি। তারা চাঁদাবাজী নয় বরং আমাকে টোল আদায়ে সহযোগীতা করে আসছে। তাই প্রতিপক্ষের মিথ্যে অপপ্রচার ও প্রকাশিত সংবাদের তীব্র প্রতিবাদ এবং নিন্দা জানাই।

বিজ্ঞাপন

আঃ আউয়াল
পিতাঃ মৃত আসমত আলী
গ্রামঃ আদর্শগ্রাম
ডাকঃ বংশীকুন্ডা
উপজেলাঃ ধর্মপাশা
জেলাঃ সুনামগঞ্জ।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

সর্বশেষ সংবাদ

বিজ্ঞাপন
x