13.7 C
New York
মঙ্গলবার, সেপ্টেম্বর ২৮, ২০২১

প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ

বিজ্ঞাপন

গত ২৯ জন ২০২০ তারিখে কয়েকটি অনলাইন ও জাতীয় পত্রিকায় ‘ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর বরাদ্দ নিয়ে নয়ছয়’ শিরোনামে প্রকাশিত সংবাদটি আমার দৃষ্টিগোচর হয়েছে। সংবাদটি সম্পুর্ণ বানোয়াট,মিথ্যা এবং উদ্দেশ্য প্রণোদিত। তাই সংবাদটির তীব্র প্রতিবাদ ও নিন্দ্রা জানাচ্ছি।

বিজ্ঞাপন

সমাজের একটি কুচক্রীমহল আমাকে সমাজে হেয় প্রতিপন্ন করার লক্ষে সংশ্লিষ্ট সংবাদ দাতাকে মিথ্যা,বানোয়াট ও ভুয়া তথ্য প্রদান করে সংবাদটি পরিবেশন করেছে। সংবাদ উল্লেখ করা হয়েছে।

২০১৯-২০ অর্থ বছরে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে বিশেষ এলাকার উন্নয়ন সহায়তা শীর্ষক কর্মসূচির আওতায় ধর্মপাশা উপজেলার ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীদের মাঝে ১০টি সেমিপাকা ঘর, ৩০টি বাইসাইকেল, শিক্ষা বৃত্তি, শিক্ষা উপকরণসহ ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক সামগ্রীর জন্য ৩০ লাখ ৭০ হাজার টাকা বরাদ্দ দেওয়া হয়। গত ১৯ মে উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে বংশীকুন্ডা উত্তর ইউনিয়নের ঘিলাগড়া গ্রামে অবস্থিত ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠী সাংস্কৃতিক উপকেন্দ্রে ওইসব সামগ্রী উপকারভোগীদের মাঝে বিতরণ করা হয়েছে। কিন্তু আশুতোষ হাজং সেমিপাকা ঘর বরাদ্দের তালিকায় নাম অন্তর্ভূক্ত করার জন্য ১৫ হাজার, বাইসাইকেলের জন্য ১ হাজার, শিক্ষা বৃত্তির তালিকায় নাম অন্তর্ভূক্ত করার জন্য বিশ্ববিদ্যালয় ও কলেজ পর্যায়ের শিক্ষার্থীদের জন্য কাছ থেকে ৫০০ এবং স্কুল পর্যায়ের শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে ৩০০ টাকা করে আদায় করেছেন।
বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া শিক্ষার্থী শিবানন্দ হাজং বলেন, ‘শিক্ষা বৃত্তি ফ্রিতে পাওয়ার কথা থাকলেও আমাদের কাছ থেকে ৩০০ থেকে ৫০০ টাকা করে নেওয়া হয়েছে। যারা ১ হাজার করে টাকা দিতে পেরেছে তাদেরকেই বাইসাইকেল দেওয়া হয়েছে।’

বিজ্ঞাপন

সাবেক ট্রাইবাল চেয়ারম্যান হিতেন্দ্র রেমার নেতৃত্বে একটি কুচক্রী মহল আমাকে হেয় প্রতিপন্ন করার লক্ষ্যে মিথ্যা তথ্য দিয়ে সংবাদ প্রকাশিত করায় এদের বিরুদ্ধে আবারোও তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।

আশুতোষ হাজং
চেয়ারম্যান,বিডব্লিউটিএ,ধর্মপাশা, সুনামগঞ্জ।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

সর্বশেষ সংবাদ

বিজ্ঞাপন
x