13.7 C
New York
মঙ্গলবার, আগস্ট ৩, ২০২১

বিয়ের ৯ দিন আগে তরুণীর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার

বিজ্ঞাপন

বরিশাল প্রতিনিধিঃ
বরিশাল নগরীতে বিয়ের মাত্র ৯ দিন আগে নিজ ঘর থেকে ওষুধ কারখানার শ্রমিক এক তরুণীর গলায় ফাঁস দেয়া মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।
বৃহস্পতিবার (২১ নভেম্বর) সন্ধ্যা সোয়া ৬টার দিকে স্থানীয়দের কাছ থেকে খবর পেয়ে মহানগরীর এয়ারপোর্ট থানা পুলিশ গলায় ফাঁস দেয়া তরুণীর মৃতদেহটি উদ্ধার করা হয়।

বিজ্ঞাপন




নিহত তরুণী শিমুল বিশ্বাস (১৯) নগরীর শের-ই-বাংলা সড়কের চৌহতপুর এলাকার বিশ্বাসবাড়ির দিনমজুর ধীরেন বিশ্বাসের ছোট মেয়ে। তিনি নগরীর বিএম কলেজ রোডের ইন্দোবাংলা ফার্মাসিউটিক্যাল লিমিটেডের শ্রমিক হিসেবে কর্মরত ছিলেন।

বিজ্ঞাপন

আগামী ৩০ নভেম্বর বাবুগঞ্জ উপজেলার রহমতপুর এলাকার এক ছেলের সঙ্গে তার বিয়ের দিন চূড়ান্ত হয়েছিল। তাই বিয়ের মাত্র ৯ দিন আগে নিজ ঘর থেকে তার লাশ উদ্ধারের ঘটনায় সন্দেহের সৃষ্টি হয়েছে।
প্রত্যক্ষদর্শী প্রতিবেশীরা জানান, শিমুলরা ৫ বোন। তাদের বাবা নিতান্তই গরিব ও দিনমজুর। অনেক কষ্ট করে চার মেয়ের বিয়ের দিয়েছেন। ছোট মেয়ে শিমুলের বিয়ে ঠিক হয়েছে। ৩০ নভেম্বর তার বিয়ের কথা ছিল।
প্রতিবেশীরা আরো জানান, বৃহস্পতিবার বিকেলে শিমুলকে ঘরে রেখে তার মা মেজো মেয়ের বাড়িতে যান। বাবাও বাড়িতে ছিলেন না। এরপর সন্ধ্যার দিকে তারা ঘরের মধ্যে আড়ার সঙ্গে শিমুলের মৃতদেহ ঝুলতে দেখে পুলিশকে খবর দেন।




বিজ্ঞাপন

শিমুলের মা তুলসী রানী বিশ্বাস জানান, দুপুরে তার মেয়ের মোবাইল নম্বরে কেউ কল করে। তখন থেকেই তার মন খারাপ। ফোনে কথা শেষ করে শিমুল মায়ের গলা জড়িয়ে ধরে ‘গরিবের বিয়ে করতে নেই’ বলে মন্তব্য করে ঘর থেকে বের হয়ে যায়। পরে শিমুলকে ঘরে রেখে মা অপর মেয়ের বাড়িতে যান। সেই সুযোগে ঘরে ঢুকে গলায় ফাঁস দেন শিমুল।




ঘটনাস্থলে থাকা বরিশাল মেট্রোপলিটন এয়ারপোর্ট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এসএম জাহিদ বিন আলম বলেন, মৃতদেহ ঝুলন্ত অবস্থায় খাটের ওপর দুই পা বাঁকানো ছিল। তবে এটি আত্মহত্যা নাকি এর পেছনে অন্য কিছু রয়েছে, তা বলা যাচ্ছে না। মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্ত রিপোর্ট পেলে মৃত্যুর সঠিক কারণ জানা যাবে।

বিজ্ঞাপন

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

Please enter your comment!
Please enter your name here

বিজ্ঞাপন

সর্বশেষ সংবাদ

x